অবচেতন মনের শক্তি এবং পরাবাস্তববাদ

আকাশে হাতি ওড়ে, জিরাফ আর গাড়ীও

পরাবাস্তববাদ, অবচেতন রূপকে প্রকাশ

ইংরেজী প্রতিশব্দ Surrealism, অবচেতন মনের কাজকর্ম রূপকের মাধ্যমে প্রকাশকে বলা হয় পরাবাস্তববাদ। সমালোচক এবং কবি আন্দ্রে ব্রেটন একজন ফরাসী যিনি এই আন্দোলনের প্রবক্তা। এই মতবাদের অনুসারিরা বলে থাকে- সত্য শুধু অবচেতনে বিরাজ করে এবং একজন পরাবাস্তববাদীই কেবল সেই সত্যকে গভীর থেকে তুলে আনতে পারে।

জীবনানন্দ দাসের মত আধুনিক কবিও এই পরাজগতের(আপাত  বাস্তব নয়) চর্চা করতেন। যা কিছু মনে আসে দ্রুততার সাথে লিখে ফেলা একজন পরাবাস্তববাদী সাহিত্যিকের বৈশিষ্ট্য। অনেকে এই মতের বিরোধিতা করলেও এভাবে অসাধারণ সৃষ্টিশীল শিল্পকর্ম তৈরি হওয়া সম্ভব। 

সাহিত্য, সংগীত, চলচ্চিত্র, দৃশ্যমান শিল্প কোথায় নেই এই মতবাদের চর্চা। সাংস্কৃতিক এই আন্দোলনে অনেক জ্ঞানী গুনী শিল্পী সাহিত্যিকেরা সক্রিয়ভাবে যোগ দিয়েছেন। এতে প্রথম বিশ্বযুদ্ধেরও ভূমিকা আছে। মনোজগতের এই আন্দোলন অটোমেটিক ড্রয়িং, অটোমেটিক রাইটিং এইসব বিষয়গুলোর জন্ম দিয়েছেন যা আগে অস্তিত্বহীন ছিল। 

http://en.wikipedia.org/wiki/Surrealism
এই বিষয়ে আরো বিস্তারিত জানার জন্য উইকিপিডিয়ার পেজ পড়ে দেখতে পারেন। 


0 comments:

Post a Comment